Home উপজেলার খবর চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে নতুন জেলা প্রশাসকের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে নতুন জেলা প্রশাসকের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

95
0

 

 

অলিউল হক ডলার,নাচোলঃ

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে সরকারী কর্মকর্তা,জনপ্রতিনিধি,শিক্ষক,গণমাধ্যমকর্মী ওবভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ ওগন্যমান্য ব্যক্তিদের সাথে নতুন জেলা প্রশাসকের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ সোমবার বেলা ১১টায় নাচোল উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। নাচোল উপজেলা নির্বাহী অফিসার সাবিহা সুলতানার সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন নতুন জেলা প্রশাসক মো.মঞ্জুরুল হাফিজ।

সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল কাদের,পৌর মেয়র আব্দুর রশিদ খান ঝালু,নাচোল ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ মো. হাফিজুর রহমান, মহিলা ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ ওবাইদুর রহমান,উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান রেজাউল করিম বাবু, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জান্নাতুন নাইম মুন্নি, নাচোল থানার অফিসার ইনচার্জ  সেলিম রেজা, সাবেক উপজেলা মুক্তি যোদ্ধা কমান্ডার মতিউর রহমান, কসবা ইউপি’র চেয়ারম্যান আজিজুর রহমান।

উন্মুক্ত আলোচনা  বক্তব্য রাখেন, বরেন্দ্র বহুমখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ নাচোল জোনের সহকারী প্রকৌশলী শাহ মো.মনজুরুল হক, উপজেরা কৃষি অফিসার বুরবুল আহম্মেদ, নাচোল অফিসার্স ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক দুলাল উদ্দিন খাঁন, নাচোল খ, ম, সরকারী বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক,নজরুল ইসলাম, নেজামপুর আলিম মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাহবুব আলম, সোনাইচন্ডি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুর রহিম, নাচোল উপজেলা প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম বাবু নাচোল প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান মানিক, নাচোল মানবিক উন্নয়ন সোসাইটির সভাপতি সাকিল রেজা প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চলনা করেন উপজেলা সমাজসেবা অফিসার আল গালিব।

নবাগত জেলা প্রশাসক মুঞ্জুরুল হাফিজ বলেন,এই উপজেলা ক্যাম্পাসকে পরিছন্ন রাখতে হবে।পৌর এলাকাকে পরিছন্ন রাখতে হবে। পরিস্কার পরিছন্ন থাকলে মনও পরিস্কার থাকে।এই অঞ্চলের উন্নয়ন করতে হলে প্রথমে,বাল্য বিয়ে,মাদককে বন্ধ করতে হবে।আর এটা বন্ধ করার জন্য যা যা করার দরকার তাই করবেন। এতে আমার সব রকম সহযোগীতা থাকবে।আর এই আইন না মানলে এর সাথে জড়িতদের ৭৩০দিন জেল খাটতে হবে। এর সাথে অরথ দন্ড গুনতে হবে।

আসন্ন শীতকালীন সময়ে করোনা প্রভাব বাড়তে পারে।তাই সকলে মাস্ক ব্যবহার করবেন।সরকারী কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিদের বলেন, মাস্ক ব্যবহার না করলে কোন সেবা প্রদান করবেননা।বঙ্গবন্ধুর সৈনিক বীরমুক্তিযোদ্ধাদের জন্য কল্যান তহবিল করা হচ্ছে। অসহায় মুক্তিযোদ্ধাদের এই ফান্ড থেকে সহযোগীতা করা হবে। আগামীতে তে-ভাগা আন্দোলনের কিংবদন্তী নেত্রী ইলামিত্ররে জীবনির ওপর একটি বই প্রকাশ করা হবে এবং সেটি আগামী বই মেলায় প্রকাশ করা হবে।ইলামিত্র ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে এই অঞ্চলে বিভিন্ন প্রকল্প নিয়ে ইলামিত্রের স্বপ্নের জায়গা তৈরি করা হবে।

তিনি অরো বলেন আদিবাসীদের মূল্যায়ন করা হবে। তাদের ভাষা, শিল্প সংস্কৃতি সংরক্ষন করতে হবে।গম্ভীরা, আলকাপ সংরক্ষণ করতে হবে।আমি নাচোলের প্রত্যন্ত অঞ্চল হেটে হেটে ঘুরবো এবং মাননীয় প্রধান মন্ত্রীকে আপনাদের সমস্যার কথা জানাবো। এই অঞ্চলের ইন্টারনেট, বৈদ্যুতিক ও পানির সমস্যার সমাধান করার চেষ্ঠা করবো।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here